সুইসাইড নোট – ভূমিকা

এ এক ঐতিহাসিক মহা পরিকল্পনা
শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগের পূর্ব মুহূর্ত,
সে তো যেকোনো সময়ই হতে পারে
কয়জন বলার সময় পায় পরিকল্পিত শেষ কথা?
দায়িত্বটা তাই স্বেচ্ছায় নিলাম;

বলে যাবো,
এই প্রতিবন্ধী সময়ের কথা
প্রতিটি উত্তরাধুনিক উন্নাসিক মানুষের মৃত্যুর আগে যা বলার ছিল
প্রতিটি ন’টা পাঁচটা’র খাঁচায় বন্দীর কথা
প্রতিটি জীবন্মৃত চোখের কথা যা স্বার্থের ইন্ধনে মেনে নেয়
বিবেকের ধর্ষণ
প্রতিটি উন্মাতাল পারভার্ট প্রতিভার কথা
প্রতিটি সলিল ফেনিল সমুদ্রের ঢেউয়ের মত ফিরে যাওয়া ব্যর্থ প্রেমিকের কথা
প্রতিটি মেকিয়াভেলির হিপোক্রেসি অবলম্বনরত তরুণের কথা
প্রতিটি চেক অ্যান্ড ব্যালেন্সরত স্বপ্নঘেরা চোখের তরুণীর কথা,
যারা যুগের ভাষায় সফলতা পেয়ে মরে যাবে
মরে গিয়ে বেঁচে যাবে
হয়তোবা তাদের স্বপ্নরা
ভালবাসার স্বার্থরা ফুরিয়ে যাবে
তবু পাবেনা
পাবে না সময় আর
শেষ কথা বলার
অসীম পিপাসার্তের তেষ্টা মেটেনা যেমন এক সমুদ্রেও।

তাদের সুইসাইড নোট প্রেমের মতন আদরে লিখে যাবো আমি,
এই আমি
উন্নাসিক, উন্মাতাল, অদ্ভুত বোকা,
সময়ের কিম্ভূতকিমাকার
চলতি যুগের অর্থহীন কৌটায় মোড়া
এক ভয়ংকর জীবন্ত রসায়ন।

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন:

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Follow

Get the latest posts delivered to your mailbox:

Free SSL