সুবোধের বিরুদ্ধে যাদের ঐক্য

আমরা কি একটু বেশি আত্মকেন্দ্রিক হয়ে যাচ্ছি না? ছাত্র, শিক্ষক, ডাক্তার, শ্রমজীবী, সরকারী কর্মকর্তা এমন হাজার পেশাজীবী একটি সমাজকে প্রতিদিন একটু একটু করে এগিয়ে নিয়ে চলে। কিন্তু যতই দিন যাচ্ছে, এগিয়ে যাবার চেয়ে পিছিয়ে যাবার অনুভূতিই বেশি পাচ্ছি। প্রত্যেকের দিকে তাকালে মনে হয়, ঘরে কখন ফিরবে সেই তাড়া। দায়িত্বশীল পদে থেকে দায়িত্বের চেয়ে ব্যাক্তিগত বিষয়সমূহ নিয়েই প্রত্যেকে আমরা চিন্তিত। সবাই যেন কিসের একটা ঘোরে আছে। অলসতা-চিন্তাহীনতার ঘোর। বলা বাহূল্য অলসতা হচ্ছে সকল পতনের জননী। কিন্তু মানুষ কি জানে শয়তান কখনো অলস হয় না, সে নিজের কাজ নিজেই করে যায়? নিচে দেখুন শয়তানের পরিশ্রমের ফসল, একটি দল ৪১ বছর আগে পরাজিত হয়েও একটু একটু করে রাষ্ট্রযন্ত্রের ভেতরে ঢুকে কী কী করে ফেলছে এবং আরেকটি দল স্রেফ একটি রাজ্যের মডেল দেখিয়ে সারা দেশকে কব্জা করে ফেলল। তাই বলি শয়তান কখনো বসে থাকে না। সৎ মানুষেরা, আর কত দায় এড়াবেন, আর কত ঘোরে থাকবেন, বিচ্ছিন্ন না হয়ে একটু কী এক হওয়া যায় না এদের বিরুদ্ধে?

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন:

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Follow

Get the latest posts delivered to your mailbox:

Free SSL